হাতের কাছে কম্পিউটার, ল্যাপটপ, মোবাইল ফোন, নোট প্যাড, নোট বুক আছে অথচ এসব দিয়ে টাইপিং করতে জানেন না তা কি হয়। টাইপিং জানা আসলে অনেক গুরুত্বপূর্ণ কারণ টাইপিং জানা থাকলে আপনার কাজগুলো আরো তাড়াতাড়ি আরো দ্রুত করতে পারবেন।। বর্তমান তথ্যপ্রযুক্তির যুগে সবার হাতে হাতে ইলেকট্রনিক ডিভাইস গুলো রয়েছে। এগুলোর যথাযথ ব্যবহার জানলে কাজ অনেক সহজ হয়ে যায়। বর্তমানে অনলাইনে কাজ করা অনেক জনপ্রিয় একটি পেশা হয়েছে। যদি আপনি একজন কোডার হতে চান বা কোডার কিন্তু টাইপিং ঠিকমতো জানেন না তাহলে আপনি আপনার কাজে তেমন উন্নতি করতে পারবেন না। শুধু কোডারই না অন্যসব কর্মজীবী মানুষদেরও টাইপিং জানা আবশ্যক। অনেকেই আছেন যারা বিভিন্ন অফিস-আদালতে চাকরি করেন কিন্তু টাইপিং এ দক্ষ না এতে করে অনেক ঝামেলা সৃষ্টি হয় সেজন্য অনেক সময় এই বিষয়টি আপনার ক্যারিয়ারের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে। তাই টাইপিং এ দক্ষতার জন্য মনে রাখতে হবে দ্রুত এবং নির্ভুল টাইপ করা। নতুন কোন দক্ষতা অনেক সময় বিরক্তির কারণ হতে পারে কিন্তু যদি এ দক্ষতা আনন্দময় হয় তাহলে বিষয়টি অনেক মজার হতে পারে তাই না? টাইপিং এ দক্ষতা বাড়ানোর জন্য অনলাইনে টাইপিং শেখার অনেক গুলো মজার গেমস এবং অ্যাপ্লিকেশন রয়েছে। সেগুলো ব্যবহার করে আপনি খুব সহজেই আপনার টাইপিং এর দক্ষতা বাড়িয়ে নিতে পারবেন। চলুন তাহলে দেরি না করে শুরু করা যাক।

দ্রুত টাইপিং শেখার কৌশল –

দ্রুত টাইপ করতে পারা এমন একটা দক্ষতা এতে অনেক সময় অপচয় হয় না। দ্রুত টাইপ করতে নিয়মিত অনুশীলন করতে হবে। আর কিছু বিষয়ে গুরুত্ব দিলে টাইপিং শিখতে ভালও লাগবে। যেমন

  • ল্যাপটপ বা কিবোর্ড নিয়ে দ্রুত টাইপ করতে গেলে তা কোলের উপর রাখার চেয়ে টেবিলের উপর রেখে করলে দ্রুত কাজ হবে।
  • বেশি ঝুঁকে টাইপ না করাই ভালো। আরামদায়ক উচ্চতায় বসে টাইপ করলে দ্রুত টাইপ করা যাবে।
  • কীবোর্ড এর উপর ঠিকমতো হাত রাখলে দ্রুত টাইপ করা যায়।
  • প্রথমে তাকিয়ে তারপর না তাকিয়ে টাইপ করার চেষ্টা করুন।
  • দ্রুত টাইপ শেখার জন্য অনুশীলনের কোন বিকল্প নেই।

নিচে অনলাইনে দ্রুত টাইপিং শেখার গেমস এবং অ্যাপ্লিকেশনগুলো দেয়া হল। এগুলোতে প্রাকটিস করে আপনারা নিজের টাইপিং দক্ষতা বাড়াতে পারেন।

টাইপিং শেখার কৌশল Speed Typing Online: 

স্পীড টাইপিং অনলাইন একটি অনলাইন টাইপিং গেম যা আপনাকে বিখ্যাত বই, বিখ্যাত গল্প, গানের লাইন কিংবা বিশ্বের নানা ধরনের মজার মজার ঘটনা টাইপ করানোর মাধ্যমে আপনার টাইপিং করার দক্ষতা বাড়াতে সাহায্য করে। এই গেমটিতে একটি উজ্জ্বল নীল রঙের বক্স থাকে যেখানে টেক্সট বা লেখাগুলো আসে। আপনাকে সেগুলো অনুসরণ করে কিওয়ার্ড গুলো চাপতে হবে। যদি সঠিক কিওয়ার্ড চাপা হয় তাহলে লেখাটা সবুজ হয়ে যায়। টাইমারে সময় শেষ হলে একটি পেজ আসে যেখানে পরিসংখ্যানের মত আপনার টাইপিং স্পিড, ভুল, ত্রুটির হার, নির্ভুল কতখানি হলো তা তুলে ধরবে। এগুলো থেকে আপনি সহজেই বুঝতে পারবেন আপনার কোথায় দক্ষতা দরকার আছে।

টাইপিং শেখার কৌশল ZType-Space Invaders Meet Webster:

এটি ও একটি মজার গেমস যা আপনাকে টাইপিং শিখতে সাহায্য করবে। এই গেমের স্টেজ গুলো একটার পর একটা সম্পূর্ণ করতে হয়। স্ক্রীনের নিচে কিছু মিসাইল থাকবে যেগুলো আপনার জাহাজটি ধ্বংস করার আগে মিসাইল এর উপরে থাকা শব্দটি আপনাকে টাইপ করতে হবে। স্টেজ সম্পূর্ণ করার সাথে সাথে দীর্ঘ এবং জটিল শব্দ প্রদর্শিত হবে এবং যদি নির্ধারিত সময়ের মধ্যে টাইপ করা না হয় শব্দটির অক্ষরগুলো একটি সিরিজ মিসাইলের মত এসে আপনার জাহাজ ধ্বংস করে দিবে। এই গেমটি আপনার টাইপিং স্পীড বাড়াতে বিশেষভাবে সাহায্য করবে।

টাইপিং শেখার কৌশল Typing Trainer:

যারা টাইপিং শিখতে চান তাদের জন্য এটি একটি অনলাইন এপ্লিকেশন। এখানে কিবোর্ডের কি গুলো কোথায় কোনটি আছে এবং কিভাবে সহজেই সেগুলো খুঁজে পাওয়া যাবে সেই সমস্ত কৌশল শেখানো হয়। টাইপিং ট্রেইনারের টিউটোরিয়াল এর একটি কালেকশন আছে যেখানে একের পর এক ধাপ এর মাধ্যমে আপনাকে টাইপিং শেখানো হবে। যেমন প্রথমে একটি শব্দ, তারপর বাক্য এরপর একটি অনুচ্ছেদ। এভাবে ধাপে ধাপে কিভাবে দ্রুত ভাবে টাইপিং শিখতে পারবেন সে সম্পর্কে শেখানো হয়। এছাড়া কিবোর্ড না দেখে কিভাবে দ্রুত টাইপিং করা সম্ভব সেই কৌশলও টাইপিং ট্রেইনার শিখিয়ে থাকে।

Tap Typing – Typing Trainer:

এই অ্যাপটি দিয়ে আপনি মোবাইলে টাইপ করতে পারবেন। কারণ কম্পিউটারের মত মোবাইলেও টাইপ শেখা জরুরী। সবচেয়ে মজার বিষয় হল এটি দিয়ে আপনি পৃথিবীর অন্যান্য মানুষের সাথেও টাইপিং এর প্রতিযোগিতা করতে পারবেন। এখানে অনেকগুলো রুম আছে যেখানে ওয়ার্ল্ডে টাইপিং শিখছে বা টাইপিং শিখতে আগ্রহী মানুষেরা একে অপরকে চ্যালেঞ্জ জানান। এই অ্যাপ্লিকেশনটি সেরা টাইপিস্টের একটি লিডার বোর্ডও প্রকাশ করে। টাইপিং এর ক্ষেত্রে আপনি যদি কোন ভুল করে থাকেন সেগুলো ও আপনাকে ধরিয়ে দেবে।

The Most Dengerous Writing App:

এটি এমন একটি ওয়েবসাইট যা আপনাকে দ্রুত টাইপ করতে বাধ্য করে। এতে যদি আপনি পাঁচ সেকেন্ডের বেশি সময় টাইপিং বন্ধ রাখেন তাহলে আপনি যা লিখেছিলেন তা ধীরে ধীরে স্ক্রিন থেকে অদৃশ্য হয়ে যাবে। এটি দুই সেকশনে বিভক্ত। একটি সময় কেন্দ্রিক আরেকটি হলো শব্দ কেন্দ্রিক। সময় কেন্দ্রিক সেশনে আপনাকে ৩ থেকে ২০ মিনিট সময় ধরে টাইপিং করতে হবে। আর শব্দ কেন্দ্রিক সেশনে আপনাকে ৭৫ থেকে শুরু করে ১৭০০ শব্দ লিখতে হবে। আপনি যদি চ্যালেঞ্জ নিতে পছন্দ করেন তাহলে এই সাইটের হার্ডকোর অপশনটি দেখতে পারেন। যেখানে আপনার সময় শেষ না হওয়া পর্যন্ত আপনাকে আপনার ভুলগুলো শোধরানোর কোন সুযোগ দেয়া হবে না। এবং সময় শেষ না হওয়া পর্যন্ত আপনি কোন কিছু কপি বা পেস্ট করতে পারবে না।

Daily Quote Typing:

এখানে আপনি আপনার পছন্দমত বিভিন্ন ধরনের গেম খেলার মাধ্যমে টাইপিং শিখতে পারবেন এবং একই সাথে টাইপিং এর গতিও বাড়াতে পারবেন। আপনার অভিজ্ঞতার উপর ভিত্তি করে তারা বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ধরনের গেম আপনাকে সরবরাহ করবে। এটি ব্যবহারকারীরা বিখ্যাত নেতা, উদ্ভাবক, বিখ্যাত মনীষীদের উদ্ধৃতি গুলো টাইপ করার মাধ্যমে টাইপিং স্কিল উন্নত করতে সক্ষম হন।

Typing Master Pro:

টাইপিং মাস্টার প্রো একটি পেইড সফটওয়্যার যা আপনাকে দ্রুত টাইপিং শিখতে সহায়তা করবে। এই সফটওয়্যারটির ফ্রী ভার্সনও আছে কিন্তু ফ্রি ভার্সনে তেমন কিছু শেখা যায় না। এই সফটওয়্যারটি এমন সুন্দরভাবে সাজানো বা বানানো যে কোনোটার পর কোনটা শিখলে ভালো হবে এবং কি বোর্ডের সব টাইপিং কি গুলো যেমন A-Z, Special Character সহ সব কিগুলো টাইপিং পদ্ধতি শিখাবে।

Bruce’s Unusal Typing Wizard:

এটিও একটি টাইপিং শেখার সফটওয়্যার। এখানে প্রায় ১৩টি লেসন আছে। একটি শেষ হলে অন্যটি চলে আসে। প্রাথমিকভাবে যারা টাইপিং শিখতে আগ্রহী তারা প্রথমদিকের লেসন গুলো প্রাকটিস করুন, ধীরে ধীরে সবগুলোই প্রাকটিসের মাধ্যমে আয়ত্তে আনা সম্ভব।

সবশেষে টাইপিং শেখার জন্য দরকার নিয়মিত অনুশীলন, শৃঙ্খলা ও ধৈর্য। এগুলো থাকলে তবেই দ্রুত টাইপিং শেখা সহজ হবে। এই তিনটি গুণ শুধু টাইপিং এর দক্ষতাকেই উন্নত করবে না বরং আপনার জীবন-যাপনের গতিই পাল্টে দিবে এবং টাইপিং এ দক্ষতার পাশাপাশি জীবনের অন্যান্য ক্ষেত্রেও আপনার দক্ষতা বেড়ে যাবে। তাই ধৈর্যসহকারে টাইপিং নিয়মিত অনুশীলন করুন। টাইপিং শিখে সফলতা অর্জন করুন। শুভকামনা সবার জন্য।